Hits: 32

রোমান সংখ্যা ব্যবস্থা ( সংখ্যা পর্ব- ২ )

0

পণ্য বিনিময় ও ব্যবসা-বাণিজ্যে রোমানরা ছিলো খুবই পটু। লিখন পদ্ধতির উদ্ভবের পর থেকে হিসাব-নিকাশের সুবিধার জন্য সংখ্যা ব্যবস্থার প্রয়োজন অপরিহার্য হয়ে পরে। রোমানরা যে সংখ্যা ব্যবস্থার উদ্ভব ও উন্নতি সাধন করেছিলো তা আজ বহু শতক পরও টিকে আছে।

রোমান সংখ্যা ব্যবস্থাকে বলা হয় ইট্রুস্ক্যান সংখ্যা ব্যবস্থার (Etruscan numerals) চাচাতো ভাই। ইট্রুস্ক্যান সংখ্যা ব্যবস্থার উৎপত্তি প্রাচীন গ্রীক ভাষা থেকে। আর রোমান সংখ্যা ব্যবস্থার উৎপত্তি প্রাচীন রোম সাম্রাজ্যে।

রোমান সাম্রাজ্যের পতনের পরও রোমান সংখ্যা ব্যবস্থা প্রচলিত থাকে কিন্তু ১৪’শতকে এসে রোমান সংখ্যা ব্যবস্থার পরিবর্তে ধীরে ধীরে হিন্দু-আরবীয় সংখ্যা ব্যবস্থার প্রসার ঘটতে থাকে। কিছু কিছু ক্ষেত্রে আজও আমরা রোমান সংখ্যাগুলো ব্যবহার করে থাকি। যেমনঃ তালিকা তৈরিতে, ঘড়িতে ইত্যাদি। এছাড়া মুভি ও টিভি প্রোগ্রামের কপিরাইট সত্ত্বে তারিখ সব সময় রোমান সংখ্যা ব্যবস্থায় লেখা হয়।

চিত্রঃ ০০

রোমান সংখ্যা ব্যবস্থা সাতটি চিহ্নের উপর ভিত্তি করে গড়ে উঠেছে।

চিত্র - ১
চিত্র – ( ০১ )

এই চিহ্নগুলো ব্যবহার করে কিছু রোমান সংখ্যার উদাহরণ দেখা যাক।

চিত্র-২
চিত্র- ( ০২ )

দোকানে গেঞ্জি কিনতে গেলে L(50)-size, XL(40)-size এই ব্যাপারটা কি এখন বুঝতে পারছেন?

ইতিহাস থেকে দেখা যায়, বিভিন্ন সাম্রাজ্যে রাজা-রাণীরা পারিবারিক ঐতিহ্য অনুযায়ী পূর্বপুরুষের নামানুসারে পরিচিত। শাসনকাল অনুক্রমে তাদেরকে নামের শেষে রোমান সংখ্যা ব্যবহার করে আলাদাভাবে চিহ্নিত করা হয়। যেমনঃ রাণী এলিজাবেথ II;  পোপ বেনেডিক্ট XIV;

জাহাজের নামের শেষেও রোমান সংখ্যা ব্যবহার করে আলাদাভাবে চিহ্নিত করা হয়। যেমনঃ ব্রিটিশ রয়্যাল নেভি’র দুটি জাহাজের নাম Attentive-I ও Attentive-II

বাড়ির নামফলক ও সমাধিফলকেও নামের শেষে রোমান সংখ্যা ব্যবহার বেশ প্রচলিত।

ছবিঃ ০৩ বিখ্যাত কলোসিয়ামের ৫২তম শাখার প্রবেশপথের উপরে এখনো LII(52) লেখাটি স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে
ছবিঃ (০৩)  বিখ্যাত কলোসিয়ামের ৫২তম শাখার প্রবেশপথের উপরে এখনো LII(52) লেখাটি স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে

ইংরেজি ভাষাতেও রোমান সংখ্যা ব্যবস্থার প্রভাব রয়েছে। ল্যাটিন ভাষা থেকে উদ্ভূত সংখ্যাভিত্তিক কিছু শব্দ আমরা নিয়মিত ব্যবহার করেছি। কিছু উদাহরণ দেখা যাক।

Unilateral (একতরফা, একপাক্ষিক), duo (দ্বৈত), quadrilateral (চতুর্ভুজ), septuagenarian (৭০ থেকে ৭৯ বছর পর্যন্ত বয়স্ক ব্যক্তি), decade (দশক), century (শতক), milliliter (১ লিটারের ১০০০ ভাগের ১ ভাগ)।

রোমান ও আরবীয় সংখ্যা ব্যবস্থার মধ্যে মূল পার্থক্য হলো, রোমান সংখ্যা ব্যবস্থায় ‘শূন্য’ এর কোনো প্রতীক ছিলো না, যা রোমান সংখ্যা ব্যবস্থার একটি অন্যতম অসুবিধা। আরেকটি অসুবিধা হলো, রোমান সংখ্যাগুলো কখনো যোগ আবার কখনো বিয়োগ করে বের করতে হয়। যেমনঃ

৯ লিখতে I ও X ব্যবহার করা হয়। X-I=IX (১০-১=৯)।

আবার, এখন ২০১৩ সাল চলছে। রোমান সংখ্যা ব্যবস্থায় ২০১৩ কে এভাবে লেখা হয় MMXIII

M+M+XIII=MMXIII (১০০০+১০০০+১৩=২০১৩)।

ঘড়িতে রোমান সংখ্যার ব্যবহার আমাদের কাছে খুবই পরিচিত।

চিত্রঃ ০৪ এই ঘড়িটি জার্মানীর বাদ সালজদেটফুর্থ-এ অবস্থিত।
চিত্রঃ (০৪)   এই ঘড়িটি জার্মানীর বাদ সালজদেটফুর্থ-এ অবস্থিত।
চিত্রঃ ০৫ - ‘২৪ ঘণ্টা’র শেফার্ড গেট ক্লক, এটি রয়্যাল গ্রীনউইচ অবসারভেটরীর বাহিরের দেওয়ালে স্থাপিত।
চিত্রঃ (০৫ )   ‘২৪ ঘণ্টা’র শেফার্ড গেট ক্লক, এটি রয়্যাল গ্রীনউইচ অবসারভেটরীর বাহিরের দেওয়ালে স্থাপিত।
চিত্রঃ ০৬ -   ১৮৫০ সালে স্থাপিত বিগ বেন, ওয়েস্টমিনস্টার, লণ্ডন। এখানেও ১ থেকে ১২ পর্যন্ত সংখ্যা গুলো রোমান সংখ্যা ব্যবস্থায় লেখা হয়েছে।
চিত্রঃ ০৬ – ১৮৫০ সালে স্থাপিত বিগ বেন, ওয়েস্টমিনস্টার, লণ্ডন। এখানেও ১ থেকে ১২ পর্যন্ত সংখ্যা গুলো রোমান সংখ্যা ব্যবস্থায় লেখা হয়েছে।
চিত্রঃ (০৭)  কিং চার্লস চার্চ, কেন্ট।
চিত্রঃ (০৭) কিং চার্লস চার্চ, কেন্ট।
(০৮) ঘড়িটি পাথর খোদাই করে বানানো হয়েছে। ক্যাথেড্রাল ডি সান্তা মারিয়া।
(০৮) ঘড়িটি পাথর খোদাই করে বানানো হয়েছে। ক্যাথেড্রাল ডি সান্তা মারিয়া।

 

আধুনিক পর্যায় সারণীতে ৭টি সারি ও ১৮টি কলামও কিন্তু রোমান সংখ্যা দ্বারাই চিহ্নিত করা হয়।

চিত্রঃ (০৯) আধুনিক পর্যায় সারণী
চিত্রঃ (০৯) আধুনিক পর্যায় সারণী

 

ভূমিকম্পের তীব্রতা পরিমাপের জন্য Mercalli intensity scale ব্যবহার করা হয়।

চিত্রঃ (১০)  Mercalli intensity scale; এই স্কেলে ভূমিকম্পের তীব্রতা প্রকাশ করা হয় রোমান সংখ্যার মাধ্যমে। I থেকে XII পর্যন্ত প্রতীকগুলো ব্যবহার করে ভূমিকম্পের তীব্রতা প্রকাশ করা হয়।
চিত্রঃ (১০) Mercalli intensity scale; এই স্কেলে ভূমিকম্পের তীব্রতা প্রকাশ করা হয় রোমান সংখ্যার মাধ্যমে। I থেকে XII পর্যন্ত প্রতীকগুলো ব্যবহার করে ভূমিকম্পের তীব্রতা প্রকাশ করা হয়।
চিত্রঃ ( ১১ )
চিত্রঃ ( ১১ )

শেষ করবো একটি মুভির কথা বলে। রিডলি স্কট পরিচালিত ও রাসেল ক্রো অভিনীত ‘গ্ল্যাডিয়েটর’ মুভিটি আমাকে রোমান সাম্রাজ্য সম্পর্কে কৌতুহলী করে তুলেছে। আর যারা এখনো মুভিটি দেখেন নি, তাদেরকে বলছি রোমানদের সম্পর্কে আরো জানতে হলে ‘গ্ল্যাডিয়েটর’ মুভিটি দেখুন কারণ জানার কোনো শেষ নেই।

[সংগৃহীত]

Hits: 32

Comments
Loading...