জন্মদিনের কথা

-ব্ইয়ের দাম কত?
-৭০ টাকা।
-এই বই তো ৪৫/৫০ টাকায় বিক্রি হয় তো….
-আমি যে বাইরের বাসে ক্যাম্পাসে আসছি,এজন্য ২০ টাকা ভাড়া লাগছে।ঐ টাকাও আপনার দিতে হবে।
-ক্যাম্পাসের বাসে আসলানা কেন?
-বই পড়তে পড়তে ক্যাম্পাসে চলে আসছি।ক্যাম্পাসের বাসে বসে পড়তে পারতামনা।বই পড়ার জন্য ২০ টাকা বেশী খরচ করছি।
সর্বশেষ বই কেনার ইতিহাস এটি।ছোট ভাই কখনো কোন গল্পের বা উপন্যাস কিনেনা।যত বই কেনা দরকার,সবগুলো আমার উপর দিয়ে চালিয়ে দেয়।
মাস দেড়েক আগেই শফীউদ্দিন সরদারের ৫-৬ টি বই কিনে নিয়ে যাই।বাসাতে গিয়েই ও বই পছন্দ করা শুরু করে,কোনটি আগে পড়বে।একটা পড়া শেষ করে আরেকটি দখল করে।
ওকে কোনসময় কোনকিছুই উপহার দেইনি।যত বই পড়া দরকার,সব বাসাতেই পেয়ে যায়।
বিপরীতে আমার পিচ্চি আপ্পুনটা কোন বইই হাতে পায়না।মাঝে মাঝে দু-একটা বই উপহার দেই।আর বাসায় আসলে যে বই পছন্দ হয়,সেটা নিয়ে যায়।অথবা কেউ রাজশাহীর দিকে গেলে তাকে দিয়ে বই নিয়ে যায়।

আজ ২৫ বছরে পা দিলাম।দুইদিন পূর্বে আরেক আপ্পুনের কাছ থেকে মগ উপহার পেয়েছি।মগের ম্যাজিক হচ্ছে,গরম কফি বা চা মগে ঢাললে মগে আমার ছবি ভেসে উঠে।আবার মগ ঠান্ডা হয়ে গেলে মগ কালো হয়ে যায়।
পিচ্চিটা আমার জন্য কবিতা লিখলেই উপহার চায়।পিচ্চিটা এভাবে বলবে-ভাইজান,আরেকটা বই পাচ্ছি তাইনা?
পিচ্চিটার জন্মদিন দুইমাস আগে পার হয়ে গেছে।আল মাহমুদ স্যারের বইটা আরো অনেক আগেই তাকে দেওয়ার কথা ছিলো,কিন্তু ভুলোমনার কারণে দিতে পারিনি।একসাথে সবগুলোর উপহার দিয়ে দিলাম।
পিচ্চি,তোকে সামনে আরো অনেক মজার মজার গিফট দিমুনে।আরো বেশী বেশী করে কবিতা লিখিস…… 🙂

জন্মদিনের কথা জন্মদিনের কথা Reviewed by বায়ান্ন on January 16, 2016 Rating: 5

No comments:

Powered by Blogger.